Home / Others / ভৈরবে সরকারি খাদ্য গুদামে দেড় কোটি টাকার চাল ও বস্তার কোন হদিস নেই

ভৈরবে সরকারি খাদ্য গুদামে দেড় কোটি টাকার চাল ও বস্তার কোন হদিস নেই

অবশেষে কিশোরগঞ্জ ভৈরব সরকারি খাদ্য গুদাম ঘরে চরম অনিয়ম ও দুর্নীতির সত্যতা পাওয়া গেছে। ভৈরবে খাদ্যগুদামের তদন্ত কমিটির রিপোর্ট কিশোরগঞ্জ জেলা প্রশাসকের কাছে দাখিল করা হয়। তদন্ত কমিটি জানায়, গুদামে মোট ৮১ টন চাল ও ১ লাখ ৭৬ হাজার নতুন খালি বস্তার মজুদ কম পাওয়া গেছে। যার সরকারি মূল্য ১ কোটি ৪৩ লাখ ৫৬ হাজার টাকা। এর মধ্য চালের মূল্য ২৯ লাখ ১৬ হাজার টাকা এবং খালি বস্তা ১ কোটি ১৪ লাখ ৪০ হাজার টাকা। কিশোরগঞ্জের ভৈরবে
খাদ্য গুদামে মোট ৮টি গোডাউন রয়েছে।

৮টির মধ্যে ৬টি গুদামের মজুদ করা মালামাল গণনা করে উল্লিখিত পরিমান চাল ও বস্তা কম পায় এই তদন্ত কমিটি। তদন্ত কমিটির আহ্বায়ক জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সহকারী কমিশনার ও ম্যাজিস্ট্রেট খোদাদাদ হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, ৬টি খাদ্য গুদামের মজুদ পরীক্ষা করে উল্লিখিত পরিমান চাল ও বস্তা কম পাওয়া গেছে। এছাড়া ২টি গুদাম সিলগালা রয়েছে। এই দুটি গুদামের মাল আদালতের অনুমতি পাওয়ার পর গণনা করা হবে।

জেলা প্রশাসক মো. সারোয়ার মুর্শেদ চৌধুরী জানান, তদন্ত প্রতিবেদন তিনি পেয়েছেন। তদন্তে গুদামে ৮১ টন চাল ও ১ লাখ ৭৬ হাজার নতুন খালি বস্তার মজুদ কম পাওয়া গেছে। রিপোর্ট পাওয়ার পরপরই যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করতে তদন্ত রিপোর্টটি ঢাকার খাদ্য অধিদফতরের মহাপরিচালকের কাছে পাঠিয়ে দিয়েছেন বলে তিনি জানান।

খাদ্য গুদামে অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগে ৩ কর্মকর্তাকে শাস্তিমূলক বদলি করা হয়। তবে কোন এক অজানা কারণে জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মোহাম্মদ তানভীর হোসেনকে বদলি করা হলেও তিনি এখনো বদলি করা কর্মস্থল ঝালকাঠি তে যোগদান করেন নি।

Check Also

দেশে প্রতি বছর খতম তারাবি পড়ায় ৫ লাখ হাফেজ

পরিসংখ্যানে দেখা গেছে, বাংলাদেশে মসজিদের সংখ্যা দুই লাখ ৫০ হাজার ৩৯৯টি। প্রতিবছর এসব মসজিদের প্রায় …